সম্পাদকীয় সংবাদ

'নিজেরাই সচেতন হই'

মোহাম্মদ ঈমাম হোসেইন, সম্পাদক:

2020-03-06 16:17:57


মোহাম্মদ ঈমাম হোসেইন:

নিজে নিজেই করোনাভাইরাস শনাক্তের পদ্ধতি জানালেন জাপান ও তাইওয়ানের চিকিৎসকরা। নতুন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হলেও দীর্ঘদিন তার লক্ষণ প্রকাশ পায় না। এ পরিস্থিতিতে কোন ব্যক্তি করোনায় আক্রান্ত হলে কিভাবে বোঝা যাবে?
গবেষকরা বলছেন, করোনভাইরাসের লক্ষণগুলো সুস্পষ্ট ও জীবাণুর বৃদ্ধি সাধন ঘটতে ২৮ দিন পর্যন্ত সময় লাগতে পারে। তবে এই সময়ে রোগীর জ্বর আসবে ও কফ জমবে।

এই সময়ের পর রোগী হাসপাতালে আসলে দেখা যায় তাদের ফুসফুস প্রায় ৫০ শতাংশ ফাবব্রোসিস হয়ে গেছে। এর অর্থ, রোগীর চিকিৎসা শুরু করতে বেশ দেরি হয়ে গেছে।

এ বিষয়ে তাইওয়ানের ডাক্তাররা করোনাভাইরাস সনাক্তের একটি উপায় বের করেছেন। যা একজন রোগী নিজেই প্রতিদিন সকালে পরীক্ষা করে দেখতে পারে।

১০ সেকেন্ডের বেশি সময় ধরে দীর্ঘশ্বাস নিলে যদি আপনি কোন কাশি, অস্বস্তি, গুমোটভাব ছাড়াই সফলভাবে নিঃশ্বাস ছাড়তে পারেন তবে এটি প্রমাণ করে যে ফুসফুসে কোনও ফাইব্রোসিস বা কোনও সংক্রমণ নেই।

এছাড়া মারাত্মক করোনাভাইরাসের চিকিৎসা শেষে রোগটি সম্পর্কে দারুণ পরামর্শ দিয়েছেন জাপানি চিকিৎসকরাও । প্রত্যেককেই মুখ ও গলার দিকে নজর রাখতে বলেছেন জাপানি চিকিৎসকরা।

মুখ ও গলা যেন না শুকায় তা নিশ্চিত করতে বলেছেন তারা। এজন্য কমপক্ষে ১৫ মিনিটের মধ্যে কয়েক চুমুক পানি পান করার ওপর জোর দিয়েছেন জাপানি চিকিৎসকরা।
কেন পান পান করবেন?

যদি কারোও মুখে ভাইরাস প্রবেশ করে তবে পানি বা অন্যান্য তরল পান করলে এ্যাসফ্যাগাসের মাধ্যমে খাদ্যনালী থেকে ভাইরাস নিচে পাকস্থলীতে নেমে যাবে।

ফলে পেটে থাকা এসিডগুলো সব ভাইরাসকে মেরে ফেলবে। তাই সবাইকে নিয়মিত পর্যাপ্ত পরিমাণ পানি পান করতে হবে।
আপনি যদি নিয়মিত পর্যাপ্ত পরিমাণ পানি পান না করেন তাহলে ভাইরাসটি আপনার উইন্ডোপাইপ ও ফুসফুসে প্রবেশ করতে পারে। যা খুবই বিপজ্জনক।


দোয়া করি, মহরাক্রমশালী স্রস্টা আল্লাহ তা'আলা যেন আমাদের সবাইকে এই ভাইরাস থেকে হেফাজত করুন-আমিন।